info@kmdinfo.in
Monday, January 25, 2021
পুরুলিয়াঅন্যন্য

পুরুলিয়া জেলা সম্পর্কিত প্রশ্ন উত্তর

পুরুলিয়া জেলাঃ পুরুলিয়া জেলা ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের মেদিনীপুর বিভাগে অবস্থিত একটি জেলা। জেলাসদর পুরুলিয়া। এই জেলার পূর্ব সীমান্তে পূর্ব বর্ধমানজেলা , বাঁকুড়া ও ঝাড়গ্রাম জেলা; এবং অপর তিন দিক ঝাড়খণ্ড রাজ্য দ্বারা বেষ্টিত।  [ ভারতের ভূগোল সম্পর্কিত 1000 প্রশ্ন উত্তর ]

পুরুলিয়া জেলা সম্পর্কে তথ্যাবলি

সীমানা: পূর্বে বাঁকুড়া ও বর্ধমান, পশ্চিমে ঝাড়খণ্ডের হাজারিবাগ, উত্তরে ধানবাদ এবং দক্ষিণে মেদিনীপুর।

আয়তন : পুরুলিয়া জেলার আয়তন ৬, ২৫৯ বর্গ কিমি।

লােকসংখ্যা: পুরুলিয়া জেলার লােকসংখ্যা ২৬,৪০,১০৬ জন।

কৃষিজীবী লােক:  প্রায় ৬০ শতাংশ।

হিন্দিভাষী: প্রায় ১০ শতাংশ।

সাঁওতালভাষী: প্রায় ১১ শতাংশ।

প্রতি বর্গ কিলােমিটারে জনসংখ্যা: ৪০৫ জন (সবচেয়ে কম)।

পুরুষ (আনুপাতিক হার) : ৪৮.৬৩ শতাংশ। মহিলা (আনুপাতিক হার) :  ৫১.৩৭ শতাংশ।

জনসংখ্যার আনুপাতিক হার গ্রামাঞ্চল :  ৯০.৫৬ শতাংশ।

জনসংখ্যার আনুপাতিক হার  শহরাঞ্চল:  ৯.৪৪ শতাংশ।

তপশিলি জাতি : এই জেলার তপশিলি জাতির সংখ্যা হল ৪৩০৫১৩ জন (১৯.৩৫৭%)।

তপশিলি উপজাতি : এই জেলার তপশিলি উপজাতির সংখ্যা ৪২৭৭৬৬ জন (১৯.২৭%)।

সাক্ষরতার হার পুরুলিয়া জেলার পুরুষ সাক্ষরতার হার ৬২.১৭%।

সাক্ষরতার হার এই জেলার মহিলা সাক্ষরতার হার ২৩.২৪ শতাংশ।

জেলাসদর: এই জেলার জেলাসদর পুরুলিয়া।

মহকুমা : পুরুলিয়া জেলার মহকুমা ৩টি। সেগুলি হল-রঘুনাথপুর, পুরুলিয়া সদর (পূর্ব) ও পুরুলিয়া সদর (পশ্চিম)।

লােকসভা : এই জেলার লােকসভা আসন ২ টি। যথা—বাঁকুড়া ও বিষ্ণুপুর।

বিধানসভা: পুরুলিয়া জেলার বিধানসভা আসন সংখ্যা ১৩টি। সেগুলি হল—সােনামুখী, বারজোরা, গঙ্গাজল ঘাটি, ওন্দা, বাঁকুড়া, ছাতনা, ইন্দাস, রায়পুর, তালডাংরা, রানিবাঁধ, বিষ্ণুপুর, কোতুলপুর ও ইদপুর।

পুরসভা : এই জেলার পুরসভা আসন ৩টি। যথা-পুরুলিয়া, রঘুনাথপুর ও ঝালদা।

গ্রাম পঞ্চায়েত: গ্রাম পঞ্চায়েতের সংখ্যা ১৭০ টি।

পচায়েত সমিতি: ২০টি পঞ্চায়েত সমিতি।

থানা : পুরুলিয়া জেলার থানার সংখ্যা ১৫ টি।

কৃষিজমি : এই জেলার কৃষিজ জমি ৩৫০.২৮ (প্রতি ১০০০ হেক্টর)।

স্বাস্থ্যকেন্দ্রের সংখ্যা : এই জেলার স্বাস্থ্যকেন্দ্রের সংখ্যা ১০৩টি।

পরিবার কল্যাণকেন্দ্র : পুরুলিয়া জেলায় পরিবার কল্যাণকেন্দ্র ৪৭৬টি।

কারখানার সংখ্যা এই জেলার কারখানার সংখ্যা ৬৫ টি।

ক্ষুদ্রশিল্পের সংখ্যা : এই জেলায় স্বীকৃত ক্ষুদ্রশিল্পের সংখ্যা ১৪৭৫৫ টি।

নদনদী : পুরুলিয়া জেলার প্রধান নদনদী হল-হনুমতী, দামােদর, ঢাকা, দুধভরিয়া, কংসাবর্তী, দ্বারকে্বর।

কৃষিজ ফসল ঃ এই জেলার প্রধান কৃষিজ ফসল হল-ধান, গম, সরিষা, কলাই, আলু, বাজরা, অড়হর, ভুট্টা প্রভৃতি।

উৎসব : এই জেলার প্রধান উৎসব হল-মনসাপূজা, মােরগ লড়াই, ছাতু পরব, ইদ পরব, আঘান মেলা প্রভৃতি।

বিখ্যাত স্থান :

 বাগমুণ্ডি : অযােধ্যা পাহাড়ের কোলে এই গ্রামটি।

সাঁওতালডি : বর্তমানে সাঁওতালডি বলতে সাঁওতালডি তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রকে বােঝায়।

কাশীপুর : পূর্বে পুরুলিয়া জেলার রাজধানী ছিল। মাইকেল মধুসূদনের স্মৃতি বিজড়িত পঞ্চকোশ রাজদরবার ছিল।

মানবাজার : মানবাজার আগে ছিল জেলার সবথেকে বড়াে থানা। ব্যবসা-বাণিজ্য ও যােগাযােগের প্রধান কেন্দ্র।

বেড়াে : এটি কাশীপুর রাজপুরােহিতদের অধিষ্ঠান ক্ষেত্র। এখানে জোড় বাংলাে মন্দির আছে।

পুরুলিয়া জেলা

ইমেজ – উইকিপিডিয়া

পুরুলিয়া জেলা সম্পর্কিত প্রশ্ন উত্তর

প্রশ্ন। পুরুলিয়া জেলায় অবস্থিত বিদ্যুৎ উৎপাদন কেন্দ্রের নাম কী ?

উত্তর – সাঁওতালডিহি তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র।

প্রশ্ন । পুরুলিয়া জেলায় কোথায় হৌনাচের দল ভালো?

উত্তর – বামানিয়া গ্রামে (কোটশিলা)।

প্রশ্নঃ এই জেলার পঞ্চায়েত সমিতি ও জেলা পরিষদের মােট আসন সংখ্যা কত ?

উত্তর – পঞ্চায়েত সমিতির আসন সংখ্যা ৩৯১টি ও জেলা পরিষদের আসন সংখ্যা ৩৪টি।

প্রশ্ন : বিশ্বের দ্বিতীয় কুষ্ঠ হাসপাতাল কোথায় ?

উত্তর — পুরুলিয়া শহরের ভাটবাধ পাড়ায়।

প্রশ্ন: বিহারের মালভূমির একটি অংশে কীজন্য পুরুলিয়া জেলার অন্তর্ভুক্ত হয় ?

উত্তর – ১৯৫১ খ্রিস্টাব্দের জনগণনায় দেখা যায় যে এই অঞ্চলে বাংলা ভাষাভাষী মানুষ বেশি, তাই এই অঞ্চল পুরুলিয়ার অন্তর্ভুক্ত হয়।

প্রশ্ন: পুরুলিয়া জেলার শ্রমিক সংঘের সভাপতি কে ছিলেন ?

উত্তর — ডি, ডি, গিরি।

প্রশ্ন: এই জেলায় আর, এস, পি, সংগঠন কখন গড়ে উঠেছিল ?

উত্তর – ১৯৪০-৪১ খ্রিস্টাব্দে এই সংগঠন গড়ে উঠেছিল।

প্রশ্ন : ৪২-এর আন্দোলনে পুরুলিয়ায় কতজনকে পুলিশ গ্রেপ্তার করে ?

উত্তর – ৭০০ জনকে পুলিশ গ্রেপ্তার করে।

প্রশ্ন : আয়তনে পুরুলিয়া জেলা কত নং স্থানে ?

উত্তর → পঞ্চম স্থানে।

প্রশ্ন : এই জেলার সর্বোচ্চ পাহাড়ের নাম কী এবং উচ্চতা কত ?

উত্তর — অযোধ্যা পাহাড়-এর উচ্চতা ৬৫০ মিটার।

প্রশ্ন : পুরুলিয়া জেলায় মােট গ্রামের সংখ্যা কত ?

উত্তর – ২৬৮৭টি।

প্রশ্ন : একজন আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন ছৌনৃত্য শিল্পীর নাম করাে।

উত্তর – গম্ভীর সিং মুড়া।

প্রশ্ন : পুরুলিয়ার প্রধান জনগােষ্ঠীর নাম কী ?

উত্তর – সাঁওতাল এবং কুড়মি।

প্রশ্ন : সাঁওতালদের প্রধান দেবতা কে?

উত্তর: সাঁওতালদের প্রধান দেবতা সিঞ্জা-বঙ্গা।

প্রশ্ন : মহাতােরা কোন সম্প্রদায়ের ?

উত্তর: কুড়মি সম্প্রদায়ের।

প্রশ্ন:  পুরুলিয়া জেলায় আয়তনে ছােটো থানার নাম কী ?

উত্তর – সাঁওতালডিহি।

প্রশ্ন:  পুরুলিয়া জেলায় কে শিল্পাশ্রম গড়েন ? উত্তর – নিবারণচন্দ্র দাশগুপ্ত।

প্রশ্ন:  এই জেলায় কত খ্রিস্টাব্দে রেললাইন পাতা হয় ?

উত্তর – ১৮৮৯ খ্রিস্টাব্দে (রানিগঞ্জ থেকে আসানসােল লাইনটি পুরুলিয়া পর্যন্ত বাড়ানাে হয়)।

প্রশ্ন: পুরুলিয়া জেলায় মােট বনভূমির পরিমাণ কত ? উত্তর বনভূমির মােট পরিমাণ ৮৪৪৫৭.৭৮ হেক্টর।

প্রশ্ন : পুরুলিয়া জেলার রেলপথ ভারতের কোন রেলপথের অন্তর্গত ?

উত্তর – দক্ষিণ-পূর্ব রেলপথ।

প্রশ্ন:  এই জেলার অর্থকারী ফসল কী কী ?

উত্তর: – তসর ও লাক্ষা পুরুলিয়া জেলার অর্থকারী ফসল।

প্রশ্ন : সাহেব বাঁধের আয়তন কত ?

উত্তর – সাহেব বাঁধের আয়তন ৬০ একর।

প্রশ্ন: পুরুলিয়া জেলার মােট ভূমির প্রায় কত শতাংশ চাষযােগ্য জমি ?

উত্তর — প্রায় ৮০ শতাংশ।

প্রশ্ন : পুরুলিয়া জেলার মুসলিম জনসংখ্যা মােট জনসংখ্যার প্রায় কত শতাংশ।

উত্তর – প্রায় ৬ শতাংশ।

প্রঃ পুরুলিয়া জেলার আয়তন কত?

উ : ৬,২৫৯ বর্গ কিমি।

প্রঃ জনসংখ্যা কত?

উঃ ২৫,৩৫,২৩৩ জন।

প্র : সাক্ষর লােকের সংখ্যা কত?

উঃ ১১,৯৯,৩৫৭ জন।

প্রঃ প্রতি কৰ্গ কিমিতে লােক’ বসতির ঘনত্ব কত?

উ : ৪০৫ জন (সবচেয়ে কম)।

প্রঃ সীমানা উল্লেখ কর।

উঃ উত্তরে ঝাড়খণ্ডের ধানবাদ, দক্ষিণে মেদিনীপুর, পূর্বে বাঁকুড়া ও বর্ধমান, পশ্চিমে ঝাড়খণ্ডের হাজারিবাগ।

প্রঃ পুরুলিয়া জেলায় গ্রাম পঞ্চায়েতের সংখ্যা কটি?

উ : ১৭০টি।

প্রঃ পুরসভা কটি ও কি কি?

উঃ তিনটি ; পুরুলিয়া, ঝালদা ও রঘুনাথপুর।

প্র ও পুরুলিয়া জেলায় কটি ব্লক ও থানা আছে?

উঃ ১৭০টি ব্লক ও থানা ১৫টি।

প্রঃ পুরুলিয়া জেলার মাটি কি প্রকৃতির?

উঃ ল্যাটেরাইট প্রকৃতির।

প্রঃ ধান ও গম উৎপাদনে কোন স্থান অধিকার করে?

উঃ ধান ও গম উৎপাদনে দ্বাদশ স্থান অধিকার করে।

প্রঃ ডিম ও দুধ উৎপাদনে কোন স্থান অধিকার করে?

উ : ডিম উৎপাদনে ১৪তম ও দুধ উৎপাদনে ১৭তম।

প্রঃ পুরুলিয়া জেলায় কয়টি কারখানা আছে?

উঃ ৬৯টি।

প্রঃ পুরুলিয়া জেলায় ক্ষুদ্র শিল্প আছে কয়টি?

উঃ ১৪,৯৬৭টি।

প্রঃ এই জেলার প্রধান শিল্পগুলি কি কি?

উঃ গালা শিল্প, তসর শিল্প, বিদ্যুৎ শিল্প ও ইস্পাত কারখানা।

প্রঃ ম্যাগনেটাইট কি?

উ : আকরিক লােহা।

প্রঃ গালা কিসের থেকে তৈরি হয়?

উঃ লাক্ষা থেকে।

প্রঃ পুরুলিয়া জেলার প্রধান খনিজগুলির নাম লেখ।

উঃ গ্রানাইট পাথর, ম্যাগনেটাইট, কয়লা, চিনামাটি, চুনাপাথর ও গালা তৈরির লাক্ষা।

প্র : অযােধ্যা পাহাড়ের উচ্চতা কত?

উঃ ৬৫০ মিটার।

প্রঃ পুরুলিয়া জেলার কয়েকটি পাহাড়ের নাম লেখ।

উঃ অযােধ্যা, বাঘমুণ্ডি, ভাণ্ডারী, জয়চণ্ডী, পরশ পাহাড়, গুরুমা পাহাড় ও পাঞ্চাৎ।

প্রঃ পশ্চিমবঙ্গের মালভূমি অঞ্চলের সর্বোচ্চ শৃঙ্গ কোনটি?

উঃ অযােধ্যা পাহাড়ের গােরগাবুরু।

প্রঃ পুরুলিয়ার প্রধান কয়েকটি নদনদীর নাম লেখ।

উঃ দ্বারকেশ্বর, কংসাবতী, দুধভরিয়া, ঢাকা, কুমারী, দামােদর, কবরু ও হনুমতী।

প্রঃ পুরুলিয়া জেলায় কটি বাঁধ আছে এবং তার নাম কি?

উঃ পাঞ্চেৎ বাঁধ।

প্রঃ এটি কোন্ নদের উপর অবস্থিত?

উ : দামােদর নদ।

প্রঃ পুরুলিয়ার কয়েকটি বিখ্যাত স্থানের নাম লেখ।

উ : পুরুলিয়া রাজবাড়ি, সাঁওতালডিহি তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র, তসর কারখানার জন্য রঘুনাথপুর।

প্রঃ পুরুলিয়া জেলা কি কারণে বিশ্ববিখ্যাত?

উঃ ছৌ নাচের জন্য।

প্রঃ ছৌ নাচের বিখ্যাত শিল্পীর নাম লেখ।

উঃ গম্ভীর সিং মুড়া।

এটিও পড়ুন – পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য বিধানসভার নির্বাচন তালিকা

Leave a Response

20 − eight =