অর্থনীতিপড়াশোনা

বাজেট সংক্রান্ত কিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য জেনে নিন

অর্থনীতি ও সংবিধান

বাজেট সংক্রান্তঃ বাজেট এক বছরের জন্য আর্থিক পরিকল্পনা। এটিতে দেশের পরিকল্পিত বিক্রয় পরিমাণ এবং আয়, সংস্থানগুলির পরিমাণ, আয় এবং ব্যয়, সম্পদ, দায় এবং নগদ প্রবাহ অন্তর্ভুক্ত থাকতে পারে। সংস্থাগুলি, সরকার, পরিবার এবং অন্যান্য সংস্থাগুলি পরিমাপযোগ্য শর্তে ক্রিয়াকলাপ বা ইভেন্টগুলির কৌশলগত পরিকল্পনা প্রকাশ করতে এটি ব্যবহার করে।

অর্থাৎ জাতীয় বাজেট দেশের সরকার প্রণীত একটি বার্ষিক দলিল যাতে রাষ্ট্রের সাংবাৎসরিক আয়-ব্যয়ের পরিকল্পনা প্রকাশ করা হয়। বাজেট ইংরেজি শব্দ যার ব্যুৎপত্তিগত অর্থ “থলে” বা ইংরেজিতে Bag। অতীতে থলেতে ভ’রে এটি আইন সভা বা সংসদে আনা হতো বলে এই দলিলটি ‘বাজেট’ নামে অভিহিত হয়ে আসছে।

কেন্দ্রীয় বাজেট হল ভারতের বার্ষিক আর্থিক প্রতিবেদন, যা পর্যায়ক্রমিক ভিত্তিতে সরকা আয়-ব্যয়ের একটি অনুমান। ভারতীয় সংবিধানের ১১২ নম্বর ধারা অনুযায়ী, বাজেট পেশ । সরকারের বাধ্যতামূলক কাজ। ঠিক সেই রীতি মেনেই, ১ ফেব্রুয়ারি সােমবার সংসদে ২০- ২২ আর্থিক বছরের বাজেট পেশ করলেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন। এক পলকে দেখে নেওয়া যাক এবছরের বাজেট সম্পর্কিত গুরুত্বপূর্ণ তথ্য।

বাজেট সংক্রান্ত কিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য

  •  স্বাধীনতার আগে ভারতের প্রথম বাজেট পেশ করেন স্কটসম্যান জেমস উইলসন (১৮৬০ সালের ১৮ ফেব্রুয়ারি)।
  • স্বাধীন ভারতের প্রথম পূর্ণ বাজেট পেশ করেন রামাস্বামী  চেট্রি কান্দাস্বামী শম্নুখম চেট্রি (১৯৪৭ সালের ২৬ নভেম্বর)।
  • টানা ৯২ বছর ভারতের রেল বাজেট আলাদাভাবে পেশা হত। ২০১৭ সাল থেকে রেল বাজেটকে কেন্দ্রীয় বাজেটের সঙ্গে মিশিয়ে দেওয়া হয়।
  • ১৯৫৫ সাল পর্যন্ত শুধুমাত্র ইংরিজি ভাষায় কেন্দ্রীয় বাজেট পেশ করা হত। ১৯৫৫-৫৬ আর্থিক বছর থেকে ইংরিজি ও হিন্দি দুই ভাষাতেই বাজেট ছাপা হওয়া শুরু হয়।
  • প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধীর পর (অর্থমন্ত্রক্তে অতিরিক্ত দায়িত্ব নিয়ে ১৯৭০-৭১ সালে বাজেট পেশ করেন তিনি, পূর্ণ সময়ের অর্থমন্ত্রী হিসাবে ২০১৯ সালে প্রথম মহিলা হিসাবে বাজেট পেশ করেছিলেন নির্মলা সীতারামন। এই নিয়ে তৃতীয়বার বাজেট পেশ করলেন তিনিই।
  • সংসদে সব থেকে বেশিবার (১০ বার) বাজেট পেশ করেছে মােরারজি দেশাই। ৮বার পূর্ণ সময় ও ২ বার অন্তবর্তীকালীন বাজেট পেশ করেন তিনি।
  • ১৮৭৩-৭৪ সালে যশবন্তরাও বলবন্তরাও চবনের পেশ করা বাজেট কালাে বাজেট নামে পরিচিত। কারণ, তাতে যে বিপুল ঘাটতি দেখানাে হয়েছিল, তার পরিমাণ ছিল ৫৫০ কোটি টাকা।
  • শব্দ সংখ্যার নিরিখে (এতে ছিল ১৮,৭২৭টি শব্দ), ১৯৯১ সালে দেশের দীর্ঘতম বাজেট পেশ করেন মনমােহন সিং।
  • ১৯৭৭ সালে সবথেকে ছোট বাজেট পেশ করেন হীরুভাই মুলজিভাই প্যাটেল (এতে ছিল ৮০০টি শব্দ)। তবে এটি অন্তর্বর্তী বাজেট ছিল।
  • ১৯২৫-১৬ আর্থিক বছরের বাজেটে প্রথম ভলান্টারি ডিসক্লোজার ইনকাম স্কিম (VDIS) চালু করেন তিরুভেল্লোর থাট্টাই কৃষ্ণমাচারি।
  • চিন্তামন কারকানাথ দেশনুখ প্রথম বাক্তি, যিনি আগে রিজার্ভ ব্যাঙ্কের গভর্নর ছিলেন ও পরে অর্থমন্ত্রী হন আর ১৯৫১ সালে বাজেট পেশ করেন |
  • ২০১৬ সাল পর্যন্ত লোকসভায় ফেব্রুয়ারি শেষ কাজের দিনটিতে বাজেট পেশ করা হত। কিন্তু ২০১৭ সালে অর্থমন্ত্রী অরুন জেটলি এই তারিখ বদল করার পর থেকেই ১ ফেব্রুয়ারি বাজেট পেশ করা হবে। আসছে।
  • প্রথম বাঙ্গ্যসভার সদস্য হিসাবে বাজেট পেশ করেন প্রণব মুখোপাধ্যায় (১৯৮২-১৮৩)।
  • যশবন্ত সিনহা ও মনমােহন সিং এই বছর (১৯৯১ সালে) ২ বার দুই দলের অর্থমন্ত্রী হিসাবে বাজেট পেশ করেন।
  • প্রথম জন মার্চে অন্তর্বর্তীকালীন বাজেট পেশ করেন ও দ্বিতীয় জন জুলাইয়ে পূর্ণ সময়ের বাজেট পেশ করেন।

এটিও পড়ুন – অর্থনীতি ও সংবিধান সম্পর্কিত গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্ন উত্তর

ট্যাগঃ বাজেট সংক্রান্ত তথ্য, জেনে নিন বাজেট সংক্রান্ত, বাজেট সংক্রান্ত গুরুত্বপূর্ণ তথ্য।

Leave a Response